সামিউল আরাফাতের জিনিয়াস ফকির

সামিউল আরাফাতের জিনিয়াস ফকির

ইউটিউবার সামিউল আরাফাত ইমন। সরকারি তিতুমীর কলেজের শিক্ষার্থী। বন্ধুদের সঙ্গে আড্ডা খেলাধুলা, মজামাস্তিতে দিন কেটে যেত একসময়। ছোটবেলা থেকেই ইমন একটু বেশি কথা বলতো।

এ জন্য তাকে অনেকে বাচালও বলতো। তবুও কথা থেমে নেই। এই কথা বলা একসময় স্বভাবে পরিণত হয়ে যায়। যেটি ইউটিউবার হয়ে ওঠার ক্ষেত্রেও বিশেষ ভূমিকা রাখে।

সামিউল আরাফাত ইমন বলেন, আমি ভাবতাম এমন কিছু করব যাতে মানুষকে বিনোদন দিতে পারি এবং মানুষের ভালবাসা পেতে পারি। আর সেই মাধ্যমটা হলো ইউটিউব। তবে বড় বড় ইউটিউবারদের ভিডিও আমি বেশি বেশি দেখতাম। তখন মনে হতো চেষ্টা করলে অবশ্যই পারব। এরপর চেষ্টা শুরু করি। বাবা মাকে পাশে পাই। তাদের ভালোবাসা ও অনুপ্রেরণায় আমি এতদূর। এ ছাড়াও, আমার ভাই-বন্ধু আমাকে খুব সাপোর্ট দেয় এবং প্রতিনিয়ত দিয়ে যাচ্ছে।

সামিউল আরাফাত আরো বলেন, সরকারি তিতুমীর কলেজে রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগে পড়াশোনা করছি পাশাপাশি ইউটিউবে বেশে সময় দিচ্ছি। কাজ করছি প্রায় দুই বছর ধরে। আর আমার চ্যানেলের নাম জিনিয়াস ফকির। ২০১৬ সালে প্রথম ভ্লগ দিয়েই শুরু করেছিলাম। মাঝে মাঝে ফানি ভিডিও বানানো চেষ্টা করেছি। কারণ আমি অনেক ফানি ভিডিও ফানি ভ্লগ দেখতাম। যেগুলো দেখে আস্তে আস্তে শিখছি এবং এগিয়ে যাবার চেষ্টা করছি। তবে আমার নতুন আরো অনেক ভাবনা আছে।

তিনি জানান, পড়াশোনা নিয়মিত করছেন আর ইউটিউবিং নিয়ে বেশ ব্যস্ত নিত্যনতুন কনটেন্ট আইডিয়া নিয়ে।

সামিউল আরাফাত ইমন বলেন, ক্যারিয়ার নিয়ে এখনো ভাবিনি তবে ইউটিউবার হিসাবে অনেকটা পথ চলতে চাই। এ ছাড়া, আমি কেমন ভিডিও বানাই এর মূল্যায়ন আপনাদের হাতে। দর্শকরা যেন পছন্দ করেন এমন ভিডিও বানানোর চেষ্টা করি। সবার ভালবাসায় এগিয়ে যেতে চাই। আর নতুন বছরে বেশ কিছু পরিকল্পনা আছে। সব কিছু ঠিকঠাক থাকলে নতুন বছরে অনেক ভালো ভালো কনটেন্ট নিয়ে হাজির হবো। দর্শকদের ভালবাসায় এমন কিছু করব যাতে সবার ভালবাসা অর্জন করতে পারি এবং জিনিয়াস ফকির বেশ জনপ্রিয় হয়ে ওঠে।

মানবকণ্ঠ/এসএস