সন্তান ও মা-বাবার সম্পর্ক হোক বন্ধুত্বপূর্ণ

মা-বাবাই কেবল জানেন, সন্তানের খেয়াল রাখা কত কষ্টের কাজ। সন্তানের জন্য মা-বাবাকে সব দিকে সমানতালে সজাগ দৃষ্টি রাখতে হয়। প্রতিটি মা-বাবারই উচিত সন্তানের কাছে আদর্শ মানুষ হওয়া। কারণ, তাদের দেখেই সে ভালো মানুষ হতে শিখবে। টাইমস অব ইন্ডিয়ায় একটা তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে, যা মা-বাবার অবশ্যই করা উচিত।
দায়িত্ববান হন: সন্তান ভুল করবে, এটাই স্বাভাবিক। কিন্তু সন্তান যেন একই ভুল বারবার না করে, সেদিকে সচেষ্ট হোন। সন্তান যেন ভালো মানুষ হিসেবে গড়ে ওঠে, সে জন্য তাকে দায়িত্ববান হিসেবে গড়ে তুলুন। যুগের সঙ্গে তাল মিলিয়ে চলতে তাকে স্বাধীনতা দিন।
বিশ্বাস স্থাপন: বিশ্বাসের অভাবে আজকাল অনেক সম্পর্ক ভেঙে যাচ্ছে। সন্তান যেন মা-বাবার সঙ্গে সব কথা নির্বিঘেœ আলোচনা করতে পারে, এই বিশ্বাস সন্তানের মনে স্থাপন করতে হবে, যাতে সন্তান ভুল পথে না যায়।
মূল্যায়ন করতে শেখানো: সবকিছুকে অবহেলায় কাটিয়ে দেবেন না। আপনার সন্তান জীবনের প্রতিটি কাজ কীভাবে মূল্যায়ন করছে, তা যাচাই করুন। ভালো কাজের জন্য তাকে পুরস্কার দিন, প্রশংসা করুন। এতে করে শিশুর মনে ভালো কাজের প্রতি আগ্রহ বাড়বে।
বেশি শাসন না করা: অনেক সময় সন্তানের ভুলের কারণে মা-বাবা বেশি মাত্রায় শাসন করেন। গায়েও হাত তুলে ফেলেন অনেকে। এটা কখনোই ঠিক নয়। বেশি শাসন ছোট বাচ্চাদের মনে নেতিবাচক প্রভাব ফেলে। তাই শাসনের পরিবর্তে তাকে বোঝানোর চেষ্টা করুন।
– সম্পর্ক ডেস্ক