রোহিঙ্গাদের রাখাইনে যেতে হবে: সুষমা স্বরাজ

মিয়ানমারের সামরিক জান্তার নির্যাতনের শিকার হয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গাদের রাখাইনে ফেরত যেতে হবে বলে মন্তব্য করেছেন ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ। রোববার বিকেলে ঢাকায় বাংলাদেশ-ভারত যৌথ পরামর্শক কমিশনের (জেসিসি) বৈঠক শেষে যৌথ ব্রিফিংয়ে তিনি এ কথা জানান।

রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেলে ঘণ্টাব্যাপী চলে চতুর্থ জেসিসি বৈঠক। এরপর সাংবাদিকদের মুখোমুখি হন বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ এইচ মাহমুদ আলী ও ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী সুষমা স্বরাজ বলেন, ‘রাখাইনে চলমান সমস্যার দীর্ঘমেয়াদি সমাধান দরকার। এই সমস্যা সমাধানের জন্য রাখাইন থেকে যারা বাংলাদেশে এসেছে, তাদের ফেরত যেতে হবে। রাখাইন সমস্যার সমাধানের জন্য সেখানকার আর্থ-সামাজিক উন্নতি দরকার। সেটি করতে ভারত তৈরি আছে।’

বৈঠকে পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ এইচ মাহমুদ আলী রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনে মিয়ানমারকে চাপ দেয়ার জন্য ভারতের প্রতি আহ্বান জানান। বৈঠক শেষে তিনি বলেন, ‘রোহিঙ্গা সমস্যার একটি শান্তিপূর্ণ সমাধান খোঁজার জন্য আমরা চেষ্টা করছি যেন রোহিঙ্গারা তাদের দেশে ফেরত যেতে পারে। সেজন্য আমি ভারতের প্রতি আহ্বান জানাই, তারা যেন মিয়ানমারের ওপর চাপ প্রয়োগ করে।’ এসময় তিনি রোহিঙ্গাদের জন্য মানবিক সহায়তা দেয়ায় ভারতকে ধন্যবাদ জানান।

এর আগে দুপুর পৌনে ২টার দিকে ভারতীয় বিমানবাহিনীর বিশেষ ফ্লাইটে ঢাকায় পৌঁছান ভারতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী। জেসিসি বৈঠকে যোগ দিতে তিনি ঢাকায় এসেছেন। সন্ধ্যায় গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করবেন সুষমা স্বরাজ। এরপর তার সৌজন্যে সোনারগাঁও হোটেলে পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাহমুদ আলীর দেয়া নৈশভোজে যোগ দেবেন। এ ছাড়া রাতে ৮টায় সুষমা স্বরাজের বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার সঙ্গে বৈঠকেরও কথা রয়েছে।

মানবকণ্ঠ/এফএইচ