রোববার টুঙ্গিপাড়ায় যাচ্ছেন রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৯৯তম জন্মবার্ষিকী ও জাতীয় শিশু দিবসের অনুষ্ঠানে যোগ দিতে রোববার গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়া আসছেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। স্বাধীন বাংলাদেশের মহান স্থপতি বঙ্গবন্ধুর সমাধিসৌধে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানাবেন তারা। তারা ফাতেহা পাঠ ও মোনাজাতে অংশ নেবেন।

এদিন জাতির পিতার প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বঙ্গবন্ধুর সমাধী সৌধ কমপ্লেক্সে মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয় আয়োজিত জাতীয় শিশু দিবসের আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে ভাষণ দিবেন। এছাড়া জাতীয় গ্রন্থকেন্দ্র ও জেলা প্রশাসনের বিভিন্ন কর্মসূচিতে অংশ নিবেন প্রধানমন্ত্রী।

রাষ্ট্রপতির প্রটোকল অফিসার মোহাম্মদ নাসির উদ্দিন সরোয়ার স্বাক্ষরিত গোপালগঞ্জের জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ মোখলেসুর রহমান সরকারের কাছে পাঠানো ফ্যাক্স বার্তায় জানানো হয়, আগামী রোববার সকাল ৯টা ১০ মিনিটে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ তেজগাঁও হেলিপ্যাড থেকে হেলিকপ্টার যোগে গোপালগঞ্জ জেলার টুঙ্গিপাড়ার উদ্দেশ্যে যাত্রা করবেন। সকাল ৯টা ৫০ মিনিটে টুঙ্গিপাড়া হেলিপ্যাডে অবতরণ করবেন। সকাল ১০টায় রাষ্ট্রপতি বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের মাজারে উপস্থিত হয়ে পুস্পস্তবক অর্পণ করবেন। এ সময় তিন বাহিনী কর্তৃক গার্ড অব অনার প্রদান করা হবে। পরে রাষ্ট্রপতি ফাতেহা পাঠ ও মোনাজাতে অংশ নিবেন। সকাল ১০টা ৩৫ মিনিটে রাষ্ট্রপতি টুঙ্গিপাড়া হেলিপ্যাড থেকে হেলিকপ্টার যোগে ঢাকার উদ্দেশ্যে যাত্রা করবেন।

অপরদিকে, প্রধানমন্ত্রীর প্রটোকল অফিসার-২ এস এম খুরশিদ-উল-আলম স্বাক্ষরিত গোপালগঞ্জের জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ মোখলেসুর রহমান সরকারের কাছে পাঠানো এক বার্তায় জানানো হয়েছে, আগামী রোববার সকাল ৯টায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তেজগাঁও বিমানবন্দর থেকে হেলিকপ্টার যোগে গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ার উদ্দেশ্যে যাত্রা করবেন। সকাল ৯টা ৪০ মিনিটে টুঙ্গিপাড়া হেলিপ্যাডে অবতরণ করবেন প্রধানমন্ত্রী। সকাল ৯টা ৫০ মিনিটে তিনি টুঙ্গিপাড়া হেলিপ্যাড থেকে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধি সৌধের উদ্দেশ্যে যাত্রা করবেন। সকাল ১০টায় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজবুর রহমানের মাজারে উপস্থিত হয়ে পুস্পস্তবক অর্পণ করবেন। এ সময় তিন বাহিনী কর্তৃক গার্ড অব অনার প্রদান করা হবে। পরে তিনি ফাতেহা পাঠ ও বিশেষ মোনাজাতে অংশ নিবেন।

সকাল সাড়ে ১০টা থেকে ১২টা ১০ মিনিট পর্যন্ত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা টুঙ্গিপাড়ায় বঙ্গবন্ধুর সমাধি সৌধ কমপ্লেক্সে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৯৯তম জন্ম বার্ষিকী এবং জাতীয় শিশু দিবস-২০১৯ উদযাপন উপলক্ষে গোপালগঞ্জ জেলা ব্রান্ডিং এর লোগোর রেপ্লিকা উপহার হিসেবে গ্রহণ, ‘বঙ্গবন্ধুকে লেখা চিঠি’ গ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন, বঙ্গবন্ধুকে লেখা শ্রেষ্ঠ চিঠি পাঠ, সেলাই মেশিন বিতরণ, ‌‘আমার কথা শোন’ শীর্ষক ভিডিও প্রদর্শন, জাতীয় শিশু দিবসের আলোচনা সভায় যোগদান ও প্রধান অতিথির ভাষণ প্রদান, কাব্যনৃত্যগীতি আলেখ্যানুষ্ঠান উপভোগ, শিশুদের ফটোসেশনে অংশ গ্রহণ এবং বইমেলা উদ্বোধন ও বিশেষ চাহিদা সম্পন্ন শিশুদের আঁকা বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশ শীর্ষক চিত্র প্রদর্শনী পরিদর্শন করবেন। দুপুর ১২টা ৩০ মিনিট থেকে দুপুর ২টা ১৫ মিনিট পর্যন্ত প্রধানমন্ত্রী নিজ বাস ভবনে অবস্থান করবেন। দুপুর ২টা ৪৫ মিনিটে প্রধানমন্ত্রী টুঙ্গিপাড়া হেলিপ্যাডের উদ্দেশ্যে যাত্রা করবেন। বেলা ৩টায় তিনি হেলিকপ্টার যোগে ঢাকার উদ্দেশ্যে যাত্রা করবেন।

গোপালগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মাহবুব আলী খান জানান, বঙ্গবন্ধুর ৯৯তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে রাষ্ট্রীয় অনুষ্ঠানে যোগ দিতে রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রী টুঙ্গিপাড়া আসবেন। এছাড়াও মন্ত্রী পরিষদের সদস্যবৃন্দ, তিন বাহিনীর প্রধান, দলীয় নেতা-কর্মী বিভিন্ন পর্যায়ের অতিথিরা বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে আসবেন। এ উপলক্ষে জেলা আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে সব ধরনের প্রস্তুতি গ্রহণ করা হয়েছে।

গোপালগঞ্জের পুলিশ সুপার মুহম্মদ সাঈদুর রহমান খান বলেন, মহামান্য রাষ্ট্রপতি ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর আগমন ঘিরে টুঙ্গিপাড়াসহ জেলা জুড়ে কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।

মানবকণ্ঠ/এফএইচ

Leave a Reply

Your email address will not be published.