‘মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটি নতুন সম্ভাবনা তৈরি করেছে’

মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটি নতুন সম্ভাবনা তৈরি করেছে

সাবেক শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ এমপি বলেছেন, সিলেটের শীর্ষস্থানীয় বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটি আমাদের অন্যতম প্রিয় শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। এ বিশ্ববিদ্যালয় নতুন সম্ভাবনা তৈরি করেছে। এটাকে এগিয়ে নিতে হবে। সিলেটের মানুষ হিসেবে আমি গর্বিত যে, এখানকার মানুষ শিক্ষার প্রসারে এগিয়ে আসছেন।

শনিবার বিকেলে শহরতলীর বটেশ্বর এলাকায় বিশ্ববিদ্যালয়ের নিজস্ব ক্যাম্পাসে নবীনবরণ ও বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

নাহিদ বলেন, বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করে দেশকে পিছিয়ে দেয়া হয়েছিল। বঙ্গবন্ধুর কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ আবার এগিয়ে চলেছে। বাংলাদেশ পিছিয়ে পড়া অবস্থা থেকে সামনে এগিয়ে চলার ক্ষেত্রে উদাহরণ সৃষ্টি করেছে। শিক্ষার প্রসারে ড. তৌফিক রহমানের অবদানের জন্য তাকে অভিনন্দন জানান সাবেক শিক্ষামন্ত্রী।

মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটির বোর্ড অব ট্রাস্টিজের সভাপতি ড. তৌফিক রহমান চৌধুরীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন- বাংলাদেশ রেড ক্রিসেন্ট সোসাইটির চেয়ারম্যান ও সিলেট-৫ আসনের এমপি হাফিজ আহমদ মজুমদার, প্রধানমন্ত্রীর সহকারী একান্ত সচিব ও মাগুরা-১ আসনের এমপি সাইফুজ্জামান শিখর, সেনাবাহিনীর ১৭ পদাতিক ডিভিশনের জিওসি ও সিলেট এরিয়ার কমান্ডার মেজর জেনারেল এস এম শামিম-উজ-জামান বিএসপি, এনডিসি, পিএসসি, সাবেক সাংসদ সৈয়দা জেবুন্নেছা হক। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন, বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত উপাচার্য অধ্যাপক শিব প্রসাদ সেন, সূচনা বক্তব্য রাখেন রেজিস্ট্রার মুহাম্মদ ফজলুর রব তানভীর প্রমুখ।

বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টর অ্যাডভোকেট মো. আব্বাছ উদ্দিন এবং শিক্ষার্থী রেজওয়ানা সামী, রবিউল করিম ও সানজিদা চৌধুরী যৌথভাবে অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন। অনুষ্ঠানের শেষ পর্যায়ে ‘ক্যারিয়ার সেন্টার’র উদ্বোধন করেন অতিথিরা।

মানবকণ্ঠ/এসএস