ভালো থাকুন বন্ধু

ভালো থাকুন বন্ধু

আমার প্রিয় মানুষদের একজন ছিলেন মানবকণ্ঠ পত্রিকার সাবেক ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক আবু বকর চৌধুরী। সমকাল পত্রিকার বার্তা সম্পাদক থাকাকালীন তার সঙ্গে পরিচয় হয়েছিল। ওই পত্রিকায় তখন নিয়মিত আমার লেখা পাখির ফিচার ছাপতেন তিনি। যেদিন মানবকণ্ঠ পত্রিকায় যোগ দিলেন সেদিন বিকেলেই তিনি ফোনে জানালেন, ‘লেখা থাকলে এক্ষুণি পাঠান। মানবকণ্ঠ পত্রিকার উদ্বোধনী সংখ্যায় ছাপব।’ সঙ্গে সঙ্গে পাঠালাম; ছাপলেনও তিনি। সেই থেকে প্রতি শুক্রবারে পাখির ফিচার মানবকণ্ঠ পত্রিকায় ছাপার রেওয়াজ চালু করলেন। যে রেওয়াজ ধরে রাখলেন তার সুযোগ্য উত্তরসূরি সহকারী বার্তা সম্পাদক জোবায়ের আহমেদ নবীন ভাই।

যাই হোক, বকর ভাই একদিন পত্রিকার সাবেক সম্পাদক শাহজাহান সরদার ভাইয়ের সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দিয়ে বললেন, ‘আলম শাইন আমার বন্ধু; ভালো লেখেন। আমাদের কাগজে নিয়মিত লিখবেন।’ তার পর থেকে ৩০৮টি পাখির ফিচার ছেপেছেন। ছেপেছেন প্রবন্ধ-নিবন্ধ, ধারাবাহিক উপন্যাসও। শুধু লেখাই নয়, যে কোনো বিষয়েই তিনি আমাকে সাহায্য করতেন সর্বদাই। কোনো বিষয়েই নিরাশ করেননি। দূর-দূরান্তে ভ্রমণে গেলে স্থানীয় প্রতিনিধিকে বলে দিতেন সমস্যা হলে যেন আমার খেয়াল রাখেন। একবার ইউএস অ্যাম্বাসিতে দাঁড়ানোর জন্য কাগজপত্রও তৈরি করে দিয়েছেন এই মানুষটি। তার সঙ্গে প্রতি সপ্তাহে অন্তত একবার কথা হতো আমার। আমি তাকে ‘মিয়া ভাই’ সম্বোধন করতাম। ফোন ধরেই প্রথমে উচ্চস্বরে হেসে নিতেন, তার পর কুশলাদি বিনিময় করতেন।

একদিন শুক্রবারে ফোন দিতেই বললেন, ‘আলম ভাই কেমন আছেন?’ জবাবের আগেই পুনরায় প্রশ্ন করলেন, ‘আপনি আজ কাগজে লিখলেন কাক গায়ক পাখি; এবার বলেন, ‘কাক কেমন গায়ক পাখি!’ বললাম, ‘সত্যিই গায়ক পাখি! আমরা সবাই জানি কোকিল গায়ক পাখি, অপরদিকে কাকের কণ্ঠস্বর কর্কশ বলে ওদেরকে অগায়ক পাখি হিসেবে জানি। অথচ সম্পূর্ণ বিপরীত বিষয়টি। বরং কাক গায়ক পাখি, কোকিল সেই তালিকায় পড়ে না। কারণ কাকের গলায় স্বরযন্ত্র রয়েছে যা কোকিলের গলায় নেই।’ কথা শুনে তিনি কিছুক্ষণ চুপচাপ রইলেন, তার পর বললেন, ‘মনে হয় না গায়ক পাখি। সারাদিন ‘ক্যা ক্যা’ করে আর আপনি বলছেন গায়ক পাখি। আপনার ই-মেইল ঠিকানা দেয়া আছে কিন্তু।’ তার পর উচ্চস্বরে হাসতে লাগলেন।

সেই থেকে কাক দেখলে বন্ধুর কথা মনে আসত আমার। মনে মনে হাসতামও। আজ সকালেও কাকের সাক্ষাত্ ঘটেছে কিন্তু হাসতে পারলাম না বরং দু’চোখ শুধু টিস্যু দিয়ে মুছলাম, আর দোয়া করলাম, ‘ভালো থাকুন বন্ধু, আল্লাহ আপনার বেহেস্ত নসিব করুন।’
লেখক: আলম শাইন, কথাসাহিত্যিক, কলামিস্ট ও বন্যপ্রাণী বিশারদ। [email protected]

মানবকণ্ঠ/এসএস