ব্রাক্ষণবাড়ীয়া-১ আসনে আওয়ামী লীগ প্রার্থী জয়ী


ব্রাহ্মণবাড়িয়া-১ (নাসিরনগর) আসনে উপ-নির্বাচনে আওয়ামী লীগ প্রার্থী ফরহাদ হোসেন নৌকা প্রতীক নিয়ে ৮২২৯৬ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত হয়েছে। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বি রেজওয়ান আহম্মেদ লাঙ্গল প্রতীক নিয়ে ৩৩৫৮৪ ভোট পেয়েছেন।

এর আগে দুপুরের পর জাতীয় পার্টির প্রার্থী রেজুয়ান আহমেদ বিভিন্ন কেন্দ্র দখলের অভিযোগ করেন। তিনি বলেন সকাল ১২ টার মধ্যে ৩৬টি এবং ৩টার পর বাকী সব কয়টি কেন্দ্র দখল হয়ে যায়। এমন নির্বাচন মেনে নেয়া যায়না। ভোটের ফলাফল আমি প্রত্যাখান করছি এবং এ আসনে পুুনঃ নির্বাচনের দাবী জানাচ্ছি।

সকাল থেকেই ভোটারের উপস্থিতি ছিলো অনেক কম। বেলা বাড়ার সাথে সাথে ভোটার বাড়বে বলা হলেও ভোটারের সারি দীর্ঘ হয়নি কোনো কেন্দ্রে । আবার কোনো কোনো কেন্দ্রে ভোট শুরুর পরবর্তী দু-আড়াই ঘন্টায় ভোট পড়ে ৩/৪’শ।

সকাল থেকে নাসিরনগর উপজেলা সদরের বেশ কয়েকটি কেন্দ্রে গিয়ে ভোটারদের কোনো সারি চোখে পড়েনি। তবে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের তৎপরতা ছিলো চোখে পড়ার মতো। ভোটের শুরুতে নাসিরনগর উপজেলা সদরে তুল্লাপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভোটকেন্দ্র কোনো ভোটারকে দেখা যায়নি। সোয়া আটটার দিকে কয়েকজন পুরুষ ভোটার কেন্দ্রে আসেন ভোট দিতে। ওই কেন্দ্রের প্রিজাইডিং অফিসার মাসুক মিয়া বলেন, আমার কেন্দ্রের মোট ভোটার সংখ্যা তিন হাজার ৯৫৮ জন। এখনো পর্যন্ত ভোটারদের কোনো ভিড় নেই। হয়তো বেলা বাড়ার সাথে সাথে ভোটারদের উপস্থিতি বাড়বে বলে আশা করছি।

এদিকে সকাল ১০টার দিকে কুলিকুন্ডা ভোট কেন্দ্রে জাতীয় পার্টি ও আওয়ামীলীগ প্রার্থীর সমর্থকদের মধ্যে ব্যাপক ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এসময় জাতীয় পার্টির ১০জন সমর্থক আহত হয়। আহতদের মধ্যে গুরুতর আহত মোমিন ভূইয়া (৩০) কে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনার পর এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে।

নির্বাচনে তিনজন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বীতা করেন। তারা হচ্ছেন আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী ফরহাদ হোসেন সংগ্রাম, জাতীয় পার্টির (জাপা) রেজওয়ান আহমেদ ও ইসলামী ঐক্যজোটের প্রার্থী এ কে এম আশরাফুল হক।

গত বছরের ১৬ ডিসেম্বর ব্রাহ্মণবাড়িয়া-১ (নাসিরনগর) আসনের সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট ছায়েদুল হক মারা যান। তার মৃত্যুতে আসনটি শূণ্য হয়।

মানবকণ্ঠ/ডিএইচ