বিএনপির মহাসচিবের ওপর হামলা অন্যায়: কাদের

পাহাড়ধসে ক্ষতিগ্রস্তদের সহায়তায় ত্রাণ নিয়ে যাওয়ার পথে বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ প্রতিনিধিদলের ওপর হামলা খুব অন্যায় বলে নিন্দা জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেছেন, যারাই হামলা করেছেন এটা খুব অন্যায়। আওয়ামী লীগ এটা খতিয়ে দেখছে। তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।

রোববার বিমানবন্দর সড়কে বিআরটিএর ভ্রাম্যমাণ আদালত কার্যক্রম পরিদর্শনে এসে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন ওবায়দুল কাদের।

সেতুমন্ত্রী আরো বলেন, আমি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলতে চেয়েছিলাম। আইজি সাহেবের সঙ্গে কথা বলেছি। চট্টগ্রামের ডিসি-এডিশনাল এসপির সঙ্গে কথা বলেছি। কেবা কারা এ ঘটনা ঘটিয়েছে, খতিয়ে দেখা হচ্ছে।

এ সময় পাল্টা একটি অভিযোগ করে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, বিএনপি পুলিশকে সঠিক তথ্য দেয় না। তাদের রাউজান হয়ে যাওয়ার তথ্য ছিল পুলিশের কাছে। পরে তারা বামুনিয়া হয়ে গেছে। পুলিশের কাছে এ তথ্য ছিল না। তথ্য থাকলে পুলিশ ওখানেই পাহারার ব্যবস্থা করত।

ওবায়দুল কাদের জানান, পুলিশ এসে আবার ত্রাণ কার্যক্রম চালানোর অনুরোধ করলেও তারা ত্রাণ কার্যক্রমে রাজি না হয়ে ফিরে গেছেন।

এ সময় তিনি বলেন, বিএনপি তো নিজেরা নিজেরাই মারামারিতে লিপ্ত। তবে এই ঘটনা আমি এভাবে দেখছি না। বিচ্ছিন্ন কোনো ঘটনা কেউ ঘটিয়ে থাকলে, পুলিশকে বলা হয়েছে নিরপেক্ষ তদন্ত করে যারা দায়ী তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে।

নৌকা ডুবে গেছে— খালেদা জিয়ার এমন বক্তব্য প্রসঙ্গে ওবায়দুল কাদের বলেন, নৌকা ডোবেনি। যে নৌকা স্বাধীনতা এনেছে সেই নৌকা কোনোদিন ডুববে না। নৌকা ডুবলে বাংলাদেশ ডুবে যাবে। নৌকা ডুবে না। আবারো ভাসবে। বিএনপির প্রতীক ধানের শীষ এক বিষাক্ত শীষ। ধানের শীষ পেটের বিষ— এটাই মানুষ মনে করে। নৌকা ডুবলে তো দেশ ডুবে যাবে।

মানবকণ্ঠ/এফএইচ

Leave a Reply

Your email address will not be published.