বাংলায় অবৈধ প্রেমের ঢল!

বাংলায় অবৈধ প্রেমের ঢল!

বেশির ভাগ প্রশ্নই কোনো অগ্রজের স্ত্রীর প্রতি প্রেম নিয়ে। কিন্তু এ কথা কেউই ঝেড়ে কাশেননি যে, সেই উদ্দীষ্টা মহিলাটি তার প্রতিও সমমনোভাব পোষণ করেন কি না।

গত সপ্তাহে বউদিবাজি নিযে কিছু মন্তব্য করেছিলেন নির্বিকার আচার্য তার ‘খোলাখুলি’ দরবারে। এবারে যেন তারই সূত্র ধরে আচার্যের দরবারে ঢল নামল অবৈধ প্রেম সংক্রান্ত প্রশ্নের। বেশির ভাগ প্রশ্নই কোনো অগ্রজের স্ত্রীর প্রতি প্রেম নিয়ে। কিন্তু এ কথা কেউই ঝেড়ে কাশেননি যে, সেই উদ্দীষ্টা মহিলাটি তার প্রতিও সমমনোভাব পোষণ করেন কি না।

এ প্রসঙ্গে একথা মনে হতেই পারে, নির্বিকার আচার্যের প্রশ্নোত্তরের আসরে লিঙ্গসমতা একটু কম। সত্যি বলতে, এই অভিযোগের পুরোটা ভিত্তিহীন নয়। বাংলা ভাষায় যখনই এই ধরনের কলামের আবির্ভাব ঘটেছে, দেখা গিয়েছে প্রশ্নকর্তাদের মধ্যে অধিকাংশই পুরুষ। বাঙালি মহিলারা কি অ্যাগনি কলামকে এড়িয়ে যান?

আরো একটা কথা। অনেকেই আইনি পারামর্শ চেয়ে এখানে প্রশ্ন পাঠাচ্ছেন। বলে রাখা ভাল, এটা একটা খোলামনে কথা বলার জায়গা। আইনি বা চিকিৎসা সংক্রান্ত প্রশ্নের নিষ্পত্তি বিশেষজ্ঞের কাছে হওয়াই বাঞ্ছনীয়। নির্বিকার এটুকুই জানাচ্ছেন তাদের।

মানবকণ্ঠ/এসএস