‘বর্তমান সরকার গণমাধ্যমের স্বাধীনতা ও কল্যাণে সবসময় সচেষ্ট’

ইকবাল সোবহান চৌধুরী

প্রধানমন্ত্রীর তথ্য উপদেষ্টা ইকবাল সোবহান চৌধুরী বলেছেন, সাংবাদিকতার স্বাধীনতার মধ্য দিয়ে গণতন্ত্র সুপ্রতিষ্ঠিত হয়- বর্তমান সরকার এটি বিশ্বাস করে বলেই গণমাধ্যমের স্বাধীনতা ও কল্যাণে সবসময় সচেষ্ট থাকে। শনিবার বগুড়া প্রেসক্লাব ভবনের ভিত্তিফলক প্রতিস্থাপন ও নির্মাণ কাজের উদ্বোধন করতে এসে তিনি এসব কথা বলেন।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি বলেন, বগুড়া উত্তরাঞ্চলের সমৃদ্ধ জেলা, প্রবেশদ্বার। ঢাকার বাহিরে বগুড়ার মিডিয়া বিকাশ বহুদিনের। বগুড়ার মানুষের আশা আকাঙ্ক্ষার প্রতিফলন হবে ক্লাবের মাধ্যমে। বগুড়ার উন্নয়ন এগিয়ে নিবে প্রেস ক্লাবের মাধ্যমে সাংবাদিকগণ।

বগুড়া প্রেসক্লাব সভাপতি মোজাম্মেল হক লালুর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন বগুড়া-১ আসনের এমপি কৃষিবীদ আব্দুল মান্নান, জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ নূরে আলম সিদ্দিকী, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আরিফুর রহমান মন্ডল বিপিএম-বার। ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক আরিফ রেহমানের সঞ্চালনায় এতে আরো বক্তব্য রাখেন দৈনিক বাংলাদেশ সম্পাদক আমান উল্লাহ খান, প্রেসক্লাবের সাবেক সাধারণ সম্পাদক মাহমুদুল আলম নয়ন, বিএফইউজের সহ-সভাপতি প্রদীপ ভট্টাচার্য শংকর, বিআইআইটির প্রতিষ্ঠাতা অধ্যক্ষ প্রকৌশলী সাহাবুদ্দিন সৈকত, লাইট হাউসের নির্বাহি সম্পাদক হারুনুর রশিদ, গাক নির্বাহি পরিচালক আলমগীর হোসেন।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন, দৈনিক উত্তরকোণ সম্পাদক অধ্যাপক মোজাম্মেল হক তালুকদার, সিনিয়র সাংবাদিক সমুদ্র হক, প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি রেজাউল হাসান রানু, সাবেক সাধারণ সম্পাদক আব্দুল মোত্তালেব মানিক, আখতারুজ্জামান, মিলন রহমান, বিএফইউজের যুগ্ম সম্পাদক জিএম সজল, প্রেসক্লাবের সহ সভাপতি মির্জা সেলিম রেজা, আব্দুস সালাম বাবু, যুগ্ম সম্পাদক নাজমুল হুদা নাসিম, বগুড়া সাংবাদিক ইউনিয়ন সভাপতি আমজাদ হোসেন মিন্টু, সাধারণ সম্পাদক জেএম রউফ, ক্লাবের কোষাধ্যক্ষ আবুল কালাম আজাদ, দপ্তর সম্পাদক শফিউল আযম কমল, সাহিত্য সম্পাদক এইচ আলিম, ক্রীড়া সম্পাদক আমিনুল ইসলাম মুক্তা প্রমুখ।

উল্লেখ্য, ২০১৭ সালের ২৬ ফেব্রুয়ারি বগুড়া প্রেসক্লাব ভবনের ভিত্তি স্থাপনের উদ্বোধন করেছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

মাননবকণ্ঠ/এসএমএএস/এসএস