নিখোঁজের ৩ দিন পর কলেজ ছাত্রীর মরদেহ উদ্ধার

নিখোঁজের ৩ দিন পর কলেজ ছাত্রীর মরদেহ উদ্ধার

নোয়াখালী জেলা শহর মাইজদী থেকে নিখোঁজের ৩ দিন পর তাবাস্ছুন তানিয়া চমক (২১) নামে এক কলেজ ছাত্রীর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার বিকেলে মাইজদীর পৌর বাজার সংলগ্ন নিজ বাসার পাশের একটি ডোবা থেকে তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়। তাবাস্ছুন তানিয়া চমক ব্যবসায়ী শাহাজাদ এনামুল হক হিমেলের মেয়ে। সে সোনাপুর কলেজের হিসাববিজ্ঞান বিভাগের তৃতীয় বর্ষের ছাত্রী।

পারিবারিক সূত্র জানায়, গত রোববার রাতে ঢাকা থেকে আসা বাবা ও মাকে আনতে মাইজদী রেল স্টেশন যায় চমক। কিন্তু বাবা ও মা সরাসরি বাসায় চলে আসলেও চমককে বাসায় এসে দেখতে পায়নি তারা। পরে বিষয়টি সুধারাম থানায় সাধারণ ডায়েরির মাধ্যমে অবহিত করা হয়। এর মধ্যে তিন দিন অতিবাহিত হলেও তাকে কোথাও পাওয়া যায়নি।

বৃহস্পতিবার দুপুরের দিকে স্থানীয় লোকজন দুর্গন্ধ পেয়ে খুঁজতে থাকলে চমকের মরদেহটি নিজ বাসার পার্শ্ববর্তী ডোবায় ভাসতে দেখে পুলিশে খবর দেয়। পরে বিকেলে পুলিশ ও টহলে থাকা র‌্যাব সদস্যরা এসে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালে প্রেরণ করেন।

সুধারাম থানার ওসি আনোয়ার হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। এ ঘটনার বিষয়ে পুলিশ তদন্ত শুরু করেছে এবং নিহত ছাত্রীর পরিবারকে থানায় মামলা দায়েরের অনুরোধ করা হয়েছে।

মানবকণ্ঠ/এসএস