‘নারীর প্রতি সহিংসতা ও ঘরের বাইরের নারীর সুরক্ষা’ শীর্ষক কর্মশালা

‘নারীর প্রতি সহিংসতা ও ঘরের বাইরের নারীর সুরক্ষা’ শীর্ষক কর্মশালা

সেন্টার ফর রিসার্চ অ্যান্ড ইনফরমেশন (সিআরআই) সাভারের শেখ হাসিনা জাতীয় যুব উন্নয়ন ইন্সটিটিউট এ ‘নারীর প্রতি সহিংসতা ও ঘরের বাইরের নারীর সুরক্ষা’ শীর্ষক একটি তিন ব্যাপী আবাসিক কর্মশালার আয়োজন করেছে।

পহেলা এপ্রিল ২০১৯ থেকে ৩ এপ্রিল ২০১৯ পর্যন্ত তিন দিন ব্যাপী এই কর্মশালা আয়োজন করা হয়েছে। সিআরআই এর ইয়ুথ নেটওয়ার্ক ইয়াং বাংলা এর ৩২ জন সদস্য যারা ২০১৫, ২০১৭ এবং ২০১৮ সালে বিভিন্ন বিভাগে জয় বাংলা ইয়ুথ অ্যাওয়ার্ড অর্জন করেছে তাদের নিয়ে এই কর্মশালা আয়োজন করা হয়।

কর্মশালার প্রথম দিন নারীর প্রতি সহিংসতার মৌলিক দিক নিয়ে মুক্ত আলোচনার মাধ্যমে কর্মশালার সূচনা হয়। এছাড়া বিভিন্ন ধরণের সহিংসতা, জেন্ডার এর জৈবিক ও সামাজিক দিক নিয়ে আলোচনা হয়। অংশগ্রহণকারীরা দলীয়ভাবে ও আলাদাভাবে বিভিন্ন কর্মকাণ্ডের মাধ্যমে নারীর প্রতি বিভিন্ন ধরণের সহিংসতা চিহ্নিত করে এবং এর সম্ভাব্য কারণ চিহ্নিত করেছে।

কর্মশালার বিষয়বস্তু ও আলোচনার ধারাবাহিকতায় ইয়াং বাংলার সদস্যরা একটি আত্ন-প্রতিফলনমূলক প্রক্রিয়ার মধ্য দিয়ে কর্মশালার বিভিন্ন বিষয়ে জানতে পারে এবং আলোচনা করে। এই কর্মশালার মাধ্যমে তাদের বিষয় গুলো নিয়ে ভাবতে এবং জেন্ডার সংবেদনশীলতা সম্পর্কে সম্যক ধারণা পেতে সহায়তা করবে।
এছাড়া অংশগ্রহণকারীরা পুরুষ, পুরুষত্ব এবং পৌরুষ, পুরুষতন্ত্র নিয়ে আলোচনা হয়েছে। কীভাবে নারীর প্রতি সহিংসতা উদ্ভূত হয় এ বিষয়েও আত্ন-প্রতিফলনমূলক মুক্ত আলোচনায় অংশ নেয়।

কর্মশালার দ্বিতীয় দিন শুরু হয় প্রথম দিন কি আলোচনা হয়েছে, অংশগ্রহণকারীরা কি কি জানতে পেরেছে, কি কি শিখেছে সে বিষয়ে একটি আলোচনার মাধ্যমে। এছাড়া পাবলিক প্লেসে নারীর সুরক্ষা কীভাবে নিশ্চিত করা যেতে পারে এ নিয়ে দলগত আলোচনার মাধ্যমে অংশগ্রহণকারীরা দলগতভাবে বিভিন্ন ধারণা শেয়ার করা হয়।

অংশগ্রহণকারীদের অনুপ্রাণিত করতে মিট দ্যা রিয়েল চেইঞ্জমেকার শীর্ষক একটি সেশনের আয়োজন করা হয় যেখানে একজন নারীর প্রতি সহিংসতা প্রতিরোধে কাজ করে যাচ্ছেন।

এছাড়া নারীর প্রতি সহিংসতা প্রতিরোধে এবং পাবলিক প্লেসে নারীর সুরক্ষা নিশ্চিতকল্পে সম্ভাব্য কি কি অংশিজনদের নিয়ে ইয়াং বাংলার তরুণরা কাজ করতে পারে সে নিয়েও একটি আত্ন-প্রতিফলনমূলক ও দলগত আলোচনার মাধ্যমে চিহ্নিত করে। এই কর্মশালার মাধ্যমে ইয়াং বাংলার সদস্য প্রতিষ্ঠানগুলো একটি কর্মপরিকল্পনা প্রণয়ন করে যা তারা তাদের নিজস্ব প্রতিষ্ঠানে বাস্তবায়ন করবে।

কর্মশালার তৃতীয় দিন একটি প্যানেল আলোচনার মাধ্যমে কর্মশালার সূচনা হয়। কাজি রিয়াজুল হক, চেয়ারম্যান, জাতীয় মানবাধিকার কমিশন, অ্যারমা দত্ত এমপি, শরমিলা রসুল, ইউএনডিপি মানবাধিকার বিশেষজ্ঞ এবং সুপ্রিম কোর্টের অ্যাডভোকেট ফওজিয়া করিম, এই প্যানেল আলোচনায় অংশ নেন।

প্যানেল আলোচনা শেষে কর্মশালা শেষ হয় এমপিদের অংশগ্রহণে নারীর প্রতি সহিংসতা প্রতিরোধে এবং পাবলিক প্লেসে নারীর সুরক্ষা নিশ্চিত করতে বর্তমানে কি কি নীতিনির্ধারণী ও আইনগত কাঠামো রয়েছে এবং আরও কি কি করণীয় রয়েছে তা নিয়ে। আলোচকদের মধ্যে রয়েছেন নাহিম রাজ্জাক এমপি, ওয়াসেকা আয়েশা খান এমপি, জুয়েল আরং এমপি।

তিন দিনের এই কর্মশালা সেন্টার ফর মেন অ্যান্ড ম্যাসকুলিনিটি স্টাডিজ (সিএমএমএস), ইউএনডিপি এর পার্টনারশীপে আয়োজিত হয়েছে। সিএমএমএস এর চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. সৈয়দ শাইখ ইমতিয়াজ বিভিন্ন সেশন পরিচালনা করেন।

মানবকণ্ঠ/আরএ/এসএস