নবীন শিক্ষার্থীদের প্রতি ঢাবি ছাত্রলীগের সাত পরামর্শ

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষে ভর্তি হওয়া নবীন শিক্ষার্থীদের ক্যাম্পাসে স্বাগত জানিয়ে তাদের বেশ কিছু পরামর্শ দিয়েছে ছাত্রলীগ।

শুক্রবার বিকেলে বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সভাপতি সনজিত চন্দ্র দাস ও সাধারণ সম্পাদক সাদ্দাম হোসেন এক বিবৃতিতে ৭ হাজার ১২৮ নবীন শিক্ষার্থীর উদ্দেশে এ পরামর্শ দেয়া হয়।

প্রথম বর্ষের নবীন শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে সাতটি পরামর্শ দিয়ে সেগুলো অনুসরণ করতে অনুরোধ করা হয়েছে সরকার সমর্থক এই ছাত্র সংগঠনের পক্ষ থেকে।

১. ক্লাস পরীক্ষা, সেমিনার-সিম্পোজিয়ামের মাধ্যমে আধুনিক গবেষণা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী হিসেবে নিজেকে গড়ে তোলা।

২. প্রগতিশীল সামাজিক সাংস্কৃতিক সংগঠনের সঙ্গে সম্পৃক্ততার মাধ্যমে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ঐতিহ্যের অঙ্গীকারের সঙ্গে একীভূত হওয়া।

৩. খেলাধুলা, বিতর্ক, সাহিত্য-সংস্কৃতির অনুশীলনের মাধ্যমে মাদক-সন্ত্রাস, মৌলবাদের বিরুদ্ধে লড়াইকে শক্তিশালী করা।

৪. আবাসিক হল ও ক্যাম্পাসে শিক্ষার সুষ্ঠু পরিবেশ ও শান্তিপূর্ণ ক্যাম্পাস জীবন নিশ্চিত করা।

৫. পরিচ্ছন্ন ক্যাম্পাস ও ছিন্নমূল শিশুদের শিক্ষার আলোয় উদ্ভাসিত করার জন্য ‘আলোর পাঠশালা’ ধর্মী সমাজকল্যাণমূলক কাজে অংশ নেওয়া।

৬. গণতান্ত্রিক মূল্যবোধ, উদার, বহুত্ববাদী-মানবিক সমাজ বিনির্মাণের প্রতিশ্রুতি, সহনশীলতা, প্রগতিশীল আশা আকাঙ্ক্ষা ও শুভকাজের প্রতিযোগিতার ছাত্ররাজনীতির মাধ্যমে নিজেকে শাণিত করা।

৭. জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ‘অসমাপ্ত আত্মজীবনী’ ও ‘কারাগারে রোজনামচা’ পাঠ এবং তার জীবন দর্শন থেকে শিক্ষা নেওয়ার পাশাপাশি বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হাসিনার স্বপ্ন-সাহস-সংগ্রামে উদ্বুদ্ধ হয়ে বিশ্বজয়ের নেশায় ঝাপিয়ে পড়া।

ছাত্রলীগের পক্ষ থেকে আরো বলা হয়, বাংলাদেশের সাহসী অভিযাত্রার অবিকল্প সারথি, বঙ্গবন্ধুকন্যা দেশরত্ম শেখ হাসিনার স্বপ্ন-সাহস-সংগ্রামে উদ্বুদ্ধ হয়ে বিশ্বজয়ের নেশায় ঝাঁপিয়ে পড়। জেনে রেখো, জয় করার জন্য পুরো একটা পৃথিবী তোমাদের জন্য অপেক্ষা করছে।

প্রত্যেকটি অনুষদের শীর্ষ মেধাবী শিক্ষার্থীদের জন্য ‘দেশরত্ন মেধাবৃত্তি’ চালু করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়েছে। বিশ্বের বিভিন্ন দেশের নামকরা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র সংগঠনগুলোর সঙ্গে ‘আইডিয়া এক্সচেঞ্জ প্রোগ্রাম’ এর প্রাক-পরিকল্পনাও নেয়া হয়েছে।

মানবকণ্ঠ/এএম