দুশ্চিন্তারও ভালো দিক আছে

এত চিন্তা করছ কেন? খামোখা চিন্তা করলে শরীর খারাপ হবে- চিন্তাগ্রস্ত আত্মীয়, বন্ধু, সহকর্মী, প্রতিবেশীদের এই কথাগুলো আমরা বলেই থাকি। চিন্তা করে কি কোনো লাভ আছে? বিশেষজ্ঞরা বলছেন, হ্যাঁ, লাভ আছে। যখন আমরা চিন্তাগ্রস্ত থাকি তখন অনেক রকম স্ট্রেস ও উৎকণ্ঠা কাজ করে, যা মানসিক স্বাস্থ্যের ওপর নেতিবাচক প্রভাব ফেলে। যে কারণে চিন্তার যে কোনো ইতিবাচক দিক থাকতে পারে তা ভেবে দেখাই হয়নি এতদিন। ইউনিভার্সিটি অব ক্যালিফোর্নিয়া-রিভারসাইডের সাইকোলজির অধ্যাপক কেট সুইনির মতে, চিন্তা আমাদের জীবনের বিভিন্ন ট্রমা কাটিয়ে উঠতে সাহায্য করে। যা মেনে নিতে পারছি না তা গ্রহণ করতে পারছি না সেই পরিস্থিতির সঙ্গে মানিয়ে নিতে, অবসাদের মোকাবিলা করতে সাহায্য করে। সেই সঙ্গে স্বাস্থ্যেরও কিছুটা উন্নতি করতে পারে। সাহায্য করতে পারে অসুস্থতা কাটিয়ে উঠতেও।

সোশ্যাল অ্যান্ড পারসোনালিটি সাইকোলজি কম্পাসে প্রকাশিত এই গবেষণাপত্রে এই কথাগুলোই লিখেছেন সুইনি। এমনকি, সুইনির মতে যারা বেশি দুশ্চিন্তা করেন তারা স্কুল, কলেজের পরীক্ষা, কর্মক্ষেত্রেও ভালো ফল করেন। কঠিন পরিস্থিতি তথ্যের গভীরে পৌঁছাতে চান এবং অনেক সফলভাবে সমস্যার সমাধান করতে পারেন। দুশ্চিন্তা কিভাবে আমাদের উপকার করে? সুইনির মতে, প্রথমত, চিন্তা আমাদের সচেতন করে দেয় যে পরিস্থিতি গুরুতর এবং এর মোকাবিলা করতে কিছু করা উচিত। তথ্য খুঁজে বের করা, বিচার করা ও সিদ্ধান্ত নেয়ার কাজে আবেগকে ব্যবহার করে থাকি আমরা। দ্বিতীয়ত, কোনো বিষয় নিয়ে দুশ্চিন্তা করলে সেই বিষয়টা মনের মধ্যে বার বার ঘুরপাক খেতে থাকে। সেই অস্বস্তিকর অনুভূতি কাটানোর জন্য আমরা উপায় খুঁজে বের করি। এটা আমাদের উদ্দীপ্ত করে ও মুড ভালো করে।- প্রিন্সিপিয়া-সায়েন্টিফিক ডটওআরজি

মানবকণ্ঠ/আরএস