ড্রাইভিং লাইসেন্স ফিরিয়ে দিলেন ব্রিটিশ যুবরাজ

গাড়ি দুর্ঘটনা থেকে বেঁচে যাওয়া ব্রিটেনের প্রিন্স ও রাণী দ্বিতীয় এলিজাবেথের স্বামী ফিলিপ স্বেচ্ছায় তার ড্রাইভিং লাইসেন্স ফিরিয়ে দিয়েছেন। বাকিংহাম প্যালেসের পক্ষ থেকে শনিবার এমনটি জানানো হয়েছে। 

গত ১৭ জানুয়ারি ৯৭ বছর বয়সী ফিলিপ একটি ভয়াবহ দুর্ঘটনা থেকে প্রাণে বেঁচে যান। সেদিন ফিলিপের ল্যান্ড রোভার গাড়িটি অন্য একটি গাড়ির সঙ্গে সংঘর্ষে উল্টে যায়। জানা যায় প্রিন্স ফিলিপ দুর্ঘটনার সময় গাড়িটি চলাচ্ছিলেন। দুর্ঘটনায় ফিলিপ প্রাণে বেঁচে গেলেও সঙ্গে থাকা ২৮ বছর বয়সী এক নারী এবং ৪৫ বছর বয়সী আরেক নারী গুরুতর আহত হন।

এ বিষয়ে বাকিংহাম প্যালেসের পক্ষ থেকে দেয়া এক বিবৃতিতে বলা হয়, সতর্কতার সঙ্গে বিবেচনা করে দ্য ডিউক অফ এডিনবার্গ স্বেচ্ছায় ড্রাইভিং লাইসেন্স ফিরিয়ে দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে

দুর্ঘটনার পর ফিলিপ জানায় কম আলো থাকার কারণে তার দেখার সমস্যা হচ্ছিল। আর তাই এই দুর্ঘটনা ঘটেছে। যদিও ওই ভয়াবহ সড়ক দুর্ঘটনার পর ফিলিপকে আবারো সিট বেল্ট ছাড়া গাড়ি চালাতে দেখা যায়।

প্রসঙ্গত, ব্রিটেনের আইন অনুযায়ী গাড়ি চালানোর কোন নির্দিষট বয়স নেই। তবে ৭০ বছর উরধের ড্রাইভারদের প্রত্যেক তিন বছর পর পর লাইসেন্স নবায়ন করতে হয়।

মানবকণ্ঠ/এআর

Leave a Reply

Your email address will not be published.