টাঙ্গাইল-চট্টগ্রামে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৪

টাঙ্গাইলের কালিহাতী ও চট্টগ্রামের ডবলমুরিংয়ে সড়ক দুর্ঘটনায় চারজন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন আরো আট জন।

শনিবার ভোর ও শুক্রবার মধ্যরাতে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

টাঙ্গাইলের কালিহাতীতে সড়ক দুর্ঘটনায় এক মাইক্রোবাসের চালকসহ ২ জন নিহত হয়েছেন। এতে আহত হয়েছেন আরো ছয়জন। শনিবার ভোর ৪টার দিকে কালিহাতীর হাতিয়া এলাকায় ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- মাইক্রোবাসের চালক মোশাররফ হোসেন মুসা এবং সুশাসনের জন্য নাগরিক-সুজনের চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা সভাপতি অ্যাডভোকেট সৈয়দ শাহজামাল।

বঙ্গবন্ধু সেতু পূর্ব থানার ওসি মো. মোশাররফ হোসেন জানান, চাঁপাইনবাবগঞ্জ থেকে মাইক্রোবাসটি ঢাকার দিকে যাচ্ছিল। পথে ভোর ৪টার দিকে মহাসড়কের কালিহাতী উপজেলার হাতিয়া নামক এলাকায় মাইক্রোবাসটিকে পেছন থেকে ধাক্কা দেয় একটি অজ্ঞাত পরিবহন। এতে মাইক্রোবাসটির সামনের অংশ দুমড়েমুচড়ে যায় এবং ঘটনাস্থলেই চালকসহ দুইজনের মৃত্যু হয়। আহত হন আরো ৬ জন। আহতদের উদ্ধার করে টাঙ্গাইল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

তিনি আরো জানান, দুই জনের লাশ উদ্ধার করে হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। পেছনে থাকা গাড়িটি ঘটনার পরপরই চলে যাওয়ায় সেটি শনাক্ত করা যায়নি।

অপরদিকে মধ্যরাতে চট্টগ্রামের ডবলমুরিং থানার দনিয়ালাপাড়ায় কাভার্ডভ্যানের চাপায় মোটরসাইকেল আরোহী বাবা ও ছেলে মারা গেছেন।

তারা হলেন- মো. সগীর (৪২) ও মো. জোনায়েদ (১২)।

ডবলমুরিং থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. জহির হোসেন জানান, মো. সগীর মনসুরাবাদ এলাকায় মুদি দোকানি এবং তার ছেলে জোনায়েদ আগ্রাবাদ গণপূর্ত বিদ্যা নিকেতনের পঞ্চম শ্রেণির ছাত্র। দুর্ঘটনার খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে মরদেহ উদ্ধার করে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। দুমড়ে-মুচড়ে যাওয়া মোটরসাইকেলটি থানায় এনে রাখা হয়েছে।

মানবকণ্ঠ/এএম