গ্যাস্ট্রিক নিরাময়ে ধনিয়া

গ্যাস্ট্রিক নিরাময়ে ধনিয়া

রান্নায় ধনিয়া পরিচিত নাম। খাবারের স্বাদ বাড়ানোর পাশাপাশি শরীরের নানান উপকারে আসে এই মসলা। পুষ্টিবিষয়ক একটি ওয়েবসাইটে প্রকাশিত প্রতিবেদন থেকে ধনিয়া বীজের উপকারিতা সম্পর্কে জানা যায়।

ধনিয়া পেট ফোলা, গ্যাস্ট্রিক, ডায়রিয়া, বমি বমিভাব ইত্যাদি দূর করতে সাহায্য করে। এতে আছে খাদ্য আঁশ এবং অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট। এরা হজম সহায়ক হরমোন উত্পন্ন করে এবং যকৃতের কার্যকারিতা বাড়ায়। ধনিয়া খারাপ কোলেস্টেরলের মাত্রা কমায় এবং ভালো কোলেস্টেরলের মাত্রা বাড়ায়। এই মসলা দস্তা, জিংক এবং অন্যান্য খনিজ সমৃদ্ধ যা ‘আরবিসি’ বা লোহিত রক্ত কণিকা বাড়ায় এবং হৃদপিণ্ড ভালো রাখে।

ধনিয়া বিপাকেও সাহায্য করে। ধনিয়া শরীরের অনাকাঙ্ক্ষিত চর্বি কমায়। এটা অ্যান্টিঅক্সডেন্টে এবং প্রয়োজনীয় ভিটামিনের ভালো উৎস; যা রক্তের শর্করা নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে। রক্তের গ্লুকোজের মাত্রা ঠিক রাখতে সকালে ধনিয়া দিয়ে তৈরি পানীয় পান করুন। এটা ওজন কমাতেও সহায়তা করে। ধনিয়া বীজে আছে ভিটামিন কে, সি, বি এবং অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট। আরো রয়েছে বিভিন্ন খনিজ উপাদান। এগুলো ত্বক ও চুলের জন্য উপকারী।

প্রতিদিনের খাবারে ধনিয়া যোগ করে ত্বকের উজ্জ্বলতা ফিরিয়ে আনা যায়। কারণ এটা ত্বকে বলিরেখা পড়তে ধীর করে এবং অ্যালার্জি ও লালচেভাব থেকে রক্ষা করে। এটা চুল বৃদ্ধির পাশাপাশি অকাল পক্কতা ধীর করে।

মানবকণ্ঠ/এসএস