খালেদা জিয়াকে কাল্পনিক মামলায় জেলে দেয়া হয়েছে: ফারুক

জয়নাল আবেদিন ফারুক

খালেদা জিয়াকে আওয়ামী লীগ (সরকার) কাল্পনিক মামলায় জেলে দিয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা জয়নাল আবেদিন ফারুক। তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী বেগম জিয়াকে কারাগারে রেখে আগামী নিবাচর্নের প্রচার চালাচ্ছেন। এটা কি গণতন্ত্রের নতুন ধারা। এটাই কি দেশের গণতন্ত্র?।

শুক্রবার জাতীয় প্রেসক্লবারের সামনে দেশ বাঁচাও মানুষ বাঁচাও সংগঠনের উদ্দ্যোগে শামসুজ্জামান দুদু মুক্তির দাবিতে আয়োজিত মানববন্ধনে প্রধান বক্তার বক্তব্যে তিনি এ মন্তব্য করেন।

ফারুক বলেন, প্রধানমন্ত্রী আপনি কি খালেদা জিয়াকে জেলে রেখে আগামী নিবার্চন করতে। সেটা কোনো ভাবেই সম্ভব নয়। ১৯৭৫ সালে ও আপনারা স্বৈরাচার কায়েম করেছেন। আর বাংলার জনগণ কোনো ভাবেই সেটা মেনে নেবে না।

তিনি বলেন, বাংলার মটিতে ৫ জানুয়ারির মত নির্বাচন আর সম্ভব নয়। দেশে এমন নির্বাচন করতে গেলে বাংলার মানুষ প্রতিহত করবে। আগামী নির্বাচন খালেদা জিয়াকে ছাড়া সম্ভব নয়। খালেদা জিয়াকে ছাড়া এদেশের মাটিতে সুষ্ঠু নিবার্চন হবে না, এবং বাংলার মানুষ সেটা গ্রহণ করবে না।

মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন, বিএনপির চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা হাবিবুর রহমান হাবিব, যুগ্ম মহাসচিব মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, দেশ বাঁচাও মানুষ বাঁচাও আন্দোলনের সভাপতি রিপন হোসেন প্রমুখ।

মানবকণ্ঠ/এসইউএম/এসএস