কিমের সঙ্গে ফের বৈঠকে বসবেন ট্রাম্প

কিমের সঙ্গে ফের বৈঠকে বসবেন ট্রাম্পমার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেছেন, তিনি সম্ভবত ফের উত্তর কোরীয় নেতা কিম জন উনের সঙ্গে বসতে যাচ্ছেন। পরামাণু অস্ত্র পরিত্যাগে পিয়ংইয়ংকে বোঝাতে নিজের চেষ্টার পক্ষে সাফাই গেতে গিয়ে তিনি এ কথা বলেন।

গত ১২ জুন কিম জন উনের সঙ্গে ঐতিহাসিক বৈঠক করেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। বার্তা সংস্থা রয়টার্সকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, তার বিশ্বাস পরমাণু নিরস্ত্রীকরণে কিম সুনির্দিষ্ট পদক্ষেপ নিয়েছেন।

পারমাণবিক অস্ত্র ত্যাগে কিমে ইচ্ছার প্রতি যখন সর্বত্র সন্দেহ বিরাজ করছে, তখন ট্রাম্প এই নিশ্চয়তার কথা শোনালেন। উত্তর কোরিয়ার সঙ্গে বহু ভাল ভাল কাজ হচ্ছে বলে জোর দিয়েছেন তিনি।

ট্রাম্প অভিযোগ করে বলেন, বাণিজ্য যুদ্ধের কারণে অতীতের মতো চীন এখন আর এ ক্ষেত্রে সহযোগিতা করছে না। গত বছরের জানুয়ারিতে ক্ষমতা গ্রহণের পরে উত্তর কোরিয়াকে বশে আনার চ্যালেঞ্জ নেন ট্রাম্প।

তিনি বলেন, উত্তর কোরিয়া ইস্যুতে আমি মাত্র তিন মাস কাজ করেছি। যেখানে আমার পূর্বসূরিরা কাজ করেছেন ত্রিশ বছর।

এ অল্প সমমেয়র মধ্যেই দেশটির পারমাণবিক অস্ত্র পরীক্ষা ও ক্ষেপণাস্ত্র উৎক্ষেপণ কর্মসূচি আমি বন্ধ করে দিয়েছে। জাপান তো শিহরিত। কী ঘটতে যাচ্ছে? এ প্রশ্নের জবাব কে দিতে পারবে? আমরা তা দেখতে যাচ্ছি।

কিমের মুখপাত্র বলেন, উত্তর কোরিয়ার সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের দ্রুত উন্নতি ঘটবে বলে আমরা আশা করছি। এতে আমরা ভাল ফল পাব।

মানবকণ্ঠ/এসএস