ওষুধ না খেয়ে সুস্থ থাকার উপায় কী?

ওষুধ না খেয়ে সুস্থ থাকার উপায় কী?ওষুধ না খেয়ে সুস্থ থাকার উপায় কী?

শীতে খাওয়ার ব্যাপারে সতর্ক থাকা উচিত। খাওয়ার পরে সঙ্গে সঙ্গে শুয়ে পড়া ঠিক নয়। কিছুক্ষণ বইপড়া বা টিভি দেখার পরে শুতে যাওয়া উচিত। এ ছাড়া রেস্তোরাঁয় খাওয়া বা কোনো অনুষ্ঠানে খাওয়া পারতপক্ষে এড়িয়ে চলতে হবে। যাদের ডিসপেপসিয়া বা ফাংশনাল বাইল ডিজিজ রয়েছে, তাদের দুধ বা তেলেভাজার মতো খাবার খাওয়া চলবে না। দুধ, দুধজাত সামগ্রী, দুধ দেয়া চা একদম বন্ধ করে দিতে হবে। তেলেভাজার দোকানে একই তেলে বার বার ব্যবহার করা হয়। এতে ক্ষতির আশঙ্কা বেশি হয়। তাই দোকানের তেলেভাজা খাওয়া বন্ধ করতে হবে। বাড়িতে তেলেভাজা তৈরি করে খেলে এই সমস্যা হয় না। তবে তেলেভাজা খাওয়ার পরে পানি, মাংসের পরে দুধ বা ভাতের পরেই ফল খাওয়া ঠিক নয়। এ সব খাওয়ার মাঝে কিছুক্ষণ ফারাক রাখা বাঞ্ছনীয়।

এ ছাড়া খাবারে আনাজ বা সহজপাচ্য জিনিসের পরিমাণ বেশি করে রাখা উচিত। পচা, বাসি খাবার খাওয়া চলবে না। রান্না করার আগে ভালো করে আনাজ ধুয়ে নিতে হবে। এ সব মেনে চললে সমস্যা অনেকখানি কমে যাবে। প্রক্রিয়াজাত খাবার যতটা সম্ভব এড়িয়ে চলা উচিত। এ সব খাবার যখন প্যাকেটে ভরা হয়, তখন এমন কিছু রাসায়নিক ব্যবহার করা হয়, যাতে হজমের সমস্যা হয়। এগুলি দীর্ঘদিন ধরে খেলে পরিপাকতন্ত্রের কর্মক্ষমতা কমে যেতে পারে। মনে রাখবেন নিজে নিজে চিকিৎসা করা উচিত নয়। চিকিৎসকের পরামর্শ মেনে ওষুধ খাওয়া উচিত। নিজে নিজে ওষুধ খাওয়ার বদ অভ্যাস ত্যাগ করতে হবে। এ ব্যাপারে অনেকের মধ্যেই সচেতনতার অভাব রয়েছে। দেরি করে চিকিৎসকের কাছে গেলে সমস্যা জটিল হতে পারে।

মানবকণ্ঠ/এসএস