একুশে টিভির সাংবাদিকদের চাকরিচ্যুতির ঘটনায় নিন্দা

সম্প্রতি একুশে টেলিভিশনে (ইটিভি) বীর মুক্তিযোদ্ধার সন্তান সাংবাদিকসহ অন্যান্য সাংবাদিকদের চাকরিচ্যুতি ও কর্মস্থলে প্রবেশে বাধা দেয়ায় গভীর উদ্বেগ প্রকাশ ও নিন্দা জানিয়েছে মুক্তিযোদ্ধার সন্তান সাংবাদিক ফোরাম।

বিভিন্ন গণমাধ্যমে কর্মরত বীর মুক্তিযোদ্ধার সন্তান সাংবাদিকদের এ সংগঠনের সভাপতি জিহাদুর রহমান জিহাদ এবং সাধারণ সম্পাদক মহিউদ্দিন কাদের রোববার এক বিবৃতিতে, সম্প্রতি একুশে টেলিভিশন থেকে মুক্তিযোদ্ধার সন্তান সাংবাদিকসহ সকল চাকরিচ্যুত সাংবাদিকদের তাদের চাকরিতে পুনর্বহালের দাবি জানান।

পাশাপাশি একুশে টিভিতে মুক্তিযোদ্ধার সন্তানসহ অন্য সাংবাদিকদের তাদের কর্মস্থলে প্রবেশে বাধা না দিতে এবং কাজ করতে বাধা না দেয়ার জন্যও আহ্বান জানিয়েছেন নেতৃবৃন্দ।

মুক্তিযোদ্ধার সন্তান সাংবাদিক ফোরাম-এর বিবৃতিতে আরও বলা হয়, যেকোনো প্রতিষ্ঠানে কর্মরতদের যেমন একটি নিয়মতান্ত্রিক কাঠামোর মধ্য দিয়ে চলতে হয়, তেমনি কর্মীদের সম্মানহানী বা তাদের সঙ্গে অনৈতিক বা অসম্মানজনক আচরণ করার অধিকার নেই সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের। একুশে টেলিভিশনের মতো একটি প্রতিষ্ঠানে এ ধরনের আচরণ অনাকাঙ্ক্ষিত ও দুঃখজনক।

বিবৃতিতে বলা হয়, একুশে টিভিতে বিদ্যমান পরিস্থিতিতে মুক্তিযোদ্ধার সন্তান সাংবাদিকরা চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন। একুশে টিভিতে এ ধরনের ঘটনা শুধু মুক্তিযোদ্ধার সন্তানদের প্রতিই নয়, বরং সারাদেশে মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের মানুষের প্রতি বড় আঘাত।

মুক্তিযোদ্ধার সন্তান সাংবাদিক ফোরাম-এর পক্ষ থেকে একুশে টেলিভিশন (ইটিভি) পরিস্থিতি নিয়ে বিএফইউজে- বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়ন ও ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়নের (ডিইউজে) হস্তক্ষেপ কামনা করা হয়েছে।