ঈদের ছুটি কাটিয়ে ফিরছেন কর্মজীবীরা, তবুও ঢাকা ফাঁকা

নিজস্ব প্রতিবেদক :
তিন দিনের ঈদের ছুটি শেষ। রাজধানীতে ফিরতে শুরু করেছেন নাড়ির টানে গ্রামে যাওয়া মানুষ। ঈদের ছুটি শেষে গতকাল সোমবার খুলেছে সরকারি-বেসরকারি অফিস। তবুও ঢাকার সড়ক, রাস্তাঘাটে নেই যানজট, মানুষের জটলা কিংবা ট্রাফিক পুলিশের তাড়া। এবার ঈদের ছুটি ছিল মোট ৩ দিন। এর মধ্যে ২ দিনই পড়েছে সাপ্তাহিক ছুটির দিন শুক্র ও শনিবার। ঈদের ছুটি বলতে শুধু রোববারই পেয়েছেন কর্মজীবীরা। ফলে পরিবারের সঙ্গে আনন্দ ভাগাভাগি শেষ না করে অনেকটা তাড়াহুড়া করেই অনেককেই ফিরতে হচ্ছে কর্মস্থলে। ঝামেলা এড়াতে কেউ কেউ ঈদের পরদিন রওনা দিয়েছেন বাড়ির উদ্দেশে।
এদিকে ঈদ শেষে গতকাল ভোর থেকেই ঢাকার রেল স্টেশন, বাস ও লঞ্চ টার্মিনালে পৌঁছতে থাকেন বিভিন্ন জেলা থেকে আসা যাত্রীরা। তারা বলছিলেন, এবার ভোগান্তি অন্যবারের চেয়ে কম।
তবে ঢাকায় ফেরা যাত্রীদের সংখ্যা কম থাকলেও আগামী দু’এক দিনের ভেতর এই সংখ্যা বাড়বে বলে মনে করছে পরিবহন কর্তৃপক্ষ। রাজধানীর গাবতলী টার্মিনাল ঘুরে এবং বাস কাউন্টারের সংশ্লিষ্টদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, ঈদ শেষে তারাই ফিরছেন যারা ঈদের অনেক আগে ছুটি নিয়ে বাড়ি গেছেন। আবার অনেকের জরুরি কাজ থাকায় বা চিকিৎসা নিতে দ্রুত ফিরছেন রাজধানীতে। তবে এই সংখ্যা খুবই কম। সায়েদাবাদ বাস টার্মিনাল ঘুরে দেখা গেছে, এস আলম, সৌদিয়া, ইকোনো সার্ভিস, শ্যামলী, সাকুরা, স্টারলাইন, সুগন্ধা, রয়েল, হানিফসহ বিভিন্ন পরিবহনের বাসযাত্রী নিয়ে ঢাকায় এসেছে। কোনো বাসে আসন খালি নেই।
বেসরকারি আর্থিক প্রতিষ্ঠান প্রাইম ইসলামী লাইফ ইন্স্যুরেন্সে দীর্ঘদিন ধরে কাজ করেন সাতক্ষীরার আফসার উদ্দিন। তিনি জানান, ঈদের আগে বৃহস্পতিবার শেষ অফিস করেছি। ওইদিনই ঢাকা ছেড়েছি। বাড়ি পৌঁছতে পৌঁছতে শুক্রবার। শনিবার ঈদ হওয়ায় এবার আর অনেকের সঙ্গে ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি সম্ভব হয়নি। কারণ পরদিন আবার ঢাকায় ফিরতে হবে। তবে বাড়ি যেতে পেরে ভালো লাগছে।
তিনি বলেন, ছুটি যদি ২ দিন বেশি পাওয়া যেত, তবে একটু ভালো হতো। পরিবার-পরিজনের সঙ্গে অন্তত আরো ২টি দিন কাটানো যেত। কিন্তু কিছুই করার নেই।
আফসার বলছিলেন, ৩ দিনে মোট ১৮ থেকে ২০ ঘণ্টা জার্নি করে আজ আবার অফিস করতে হচ্ছে।
বরাবরই ঈদুল ফিতরের ছুটি ঘোষণার সময় বাড়তি একদিন হাতে রেখে ঘোষণা করা হয়। এবারো ১৫ থেকে ১?৭ জুন পর্যন্ত মোট ৩ দিন ঈদের ছুটি ঘোষণা করা হয়। যদি ঈদ ১৬ জুন শনিবারের পরিবর্তে ১৭ জুন রোববার অনুষ্ঠিত হতো তাহলে সরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীরা ১৮ জুন সোমবার বাড়তি আরো একদিন ঈদের ছুটি ভোগ করার সুযোগ পেতেন।
শুক্রবার ঈদুল ফিতরের চাঁদ দেখা যাওয়ায় শনিবার দেশে ঈদ উদযাপিত হয়। ফলে রোববারই শেষ হয় ঈদের ছুটি। আজ সোমবার থেকে যথারীতি অফিস-আদালত খুলেছে।
এদিকে ঈদের আগে যারা যেতে পারেননি তারা অনেকে ঈদের পরই রওনা দিয়েছেন গ্রামের বাড়ির উদ্দেশে। তারা জানান, ঈদের আগে বাড়তি চাপ আর ঝামেলার কারণে ঈদের পরদিন যাচ্ছেন। অনেকে আবার ঈদের পরে যাচ্ছেন একটু বেশিদিন স্বজনদের কাছে থাকার আশায়।
কমলাপুল রেলওয়ে স্টেশনে গিয়ে দেখা গেছে, ঈদের পরে বাড়ি যাওয়ার জন্য যারা টিকিট সংগ্রহ করতে গেছেন, তাদেরকেও লম্বা লাইনে দাঁড়াতে হয়েছে। এ ব্যাপারে স্টেশন কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, টিকিট সীমিত। ঈদের আগে ট্রেনের স্পেশাল সার্ভিস ছিল। ঈদের পর সেই সার্ভিস নেই। তাই টিকিট পেতে হয়তো সমস্যা হয়ে থাকবে।