অনিয়মিত হৃদস্পন্দন হলে জানাবে অ্যাপ

অনিয়মিত হৃদস্পন্দন হলে জানাবে অ্যাপঅনিয়মিত হৃদস্পন্দন একটি সাধারণ ব্যধি হিসেবে গণ্য করা হয়। এমন কী এর জন্য অনেক সময় বড় ধরনের সমস্যার মুখে পড়তে হয়। এমন অনিয়িমিত হৃদস্পন্দনকে ডিসঅর্ডার হিসেবে দেখেন ডাক্তাররা। যার ফল হতে পারে মানুষের রক্ত প্রবাহকে একেবারে কমিয়ে দেয়া। এমন অনিয়মিত হার্টবিট হলে স্মার্টফোন অ্যাপ্লিকেশন বা অ্যাপের মধ্যেমে জানা যাবে। বিজ্ঞানীরা এমন একটি স্মার্টফোন অ্যাপ্লিকেশন উদ্ভাবন করেছেন যেটি মানুষের অনিয়মিত হার্টবিট হলে ধরিয়ে দেবে।

‘দ্য নভেল’ নামের অ্যাপটি হৃদস্পন্দন, শ্বাস-প্রশ্বাস ও শারীরিক ক্লান্তিকে উপসর্গ হিসেবে ধরে একটা হিসাব করে হৃদযন্ত্রের ছন্দ পরিমাপ করে। অ্যাপটি এক মিনিটের জন্য স্মার্টফোন ক্যামেরার সামনে বাম দিকের তর্জনী ধরে রাখার জন্য ব্যবহার করা হয়।

গবেষকরা বলছেন, অ্যাপটি স্বয়ংক্রিয়ভাবে একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করে। বেশিরভাগ মানুষের হাতেই এখন একটি হলেও স্মার্টফোন রয়েছে। আর সেই স্মার্টফোন ক্যামেরাই পারে অ্যাট্রিয়াল ফিবরিলেশন সনাক্ত করতে। এটা খুব স্বল্প খরচের একটি পদ্ধতি। যেখানে হাজারো মানুষ তাদের হৃদস্পন্দনের অবস্থা সম্পর্কে জানতে পারবেন বলে জানান বেলজিয়ামের ইউনিভার্সিটি অব হ্যাসেল্ট-এর অধ্যাপক এবং গবেষকদের প্রধান ইনভেস্টিগেটর পিটার ভ্যান্ডারভোর্ট।

এই গবেষণাটি যাদের ওপর করা হয়েছে তাদের টানা এক সপ্তাহ দিনে দুবার করে হৃদস্পন্দন পরীক্ষা করে দেখা হয়েছে। পরীক্ষাটি করা হয়েছে ৫০ বছর বয়স্কদের ওপর যাদের ৫৮ শতাংশই পুরুষ। গবেষণাটি ৯ হাজার ৮৮৯ জনের ওপর করা হয়েছে। অ্যাপটি এখনো সবার জন্য উন্মুক্ত করেননি গবেষকরা।

মানবকণ্ঠ/এসএস