শিরোনাম :
জাদুর জুতা, ৩০০ বছর দেয়ালে ঝুলছে!
অনলাইন ডেস্ক
Published : Sunday, 8 January, 2017 at 12:21 PM, Update: 08.01.2017 12:34:52 PM
জাদুর জুতা, ৩০০ বছর দেয়ালে ঝুলছে!মনে করার চেষ্টা করুনতো ৩০০ বছর আগের জুতা যদি একটি দেয়ালে ঝুলতে দেখেন তো বিষয়টা কেমন হবে? এমনটিই দেখা গেছে,  ইংল্যান্ডের বিশ্বখ্যাত কেমব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের ভবনের দেয়ালে। দেয়াল থেকে পাওয়া গেছে ৩০০ বছর আগের একটি জুতা। ধারণা করা হচ্ছে, ইংল্যান্ডে এক সময়ের বেশ জনপ্রিয় ও প্রচলিত জাদু অ্যাপোট্রোপিয়াকের নির্দশন এটি। সৌভ্যাগ্যের প্রতীক হিসেবে ও অশুভ আত্মা থেকে রক্ষা পাওয়ার লক্ষ্যে জুতাটি দেয়ালের অভ্যন্তরে রাখা ছিল।

সম্প্রতি ভবনের কমনরুমের দেয়ালে বৈদ্যুতিক তার স্থাপনের জন্য বিভিন্ন প্যানেল অপরসারণ করতে গিয়ে ওই জুতা আবিষ্কার করে রক্ষণাবেক্ষণ কর্মীরা। জুতাটি পাওয়া গেছে মূলত কেমব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের সেন্ট জোনস কলেজের একটি ভবনের দেয়াল থেকে। কলেজ প্রধানের বাসস্থান হিসেবে ওই ভবনটি ব্যবহৃত হয়।

ধারণা করা হচ্ছে, ইংল্যান্ডে এক সময়ের বেশ জনপ্রিয় ও প্রচলিত জাদু অ্যাপোট্রোপিয়াকের নির্দশন এটি। সৌভ্যাগ্যের প্রতীক হিসেবে ও অশুভ আত্মা থেকে রক্ষা পাওয়ার লক্ষ্যে জুতাটি দেয়ালের অভ্যন্তরে রাখা ছিল। ইংল্যান্ডের বিশ্বখ্যাত কেমব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের ভবনের দেয়াল থেকে পাওয়া গেছে ৩০০ বছর আগের একটি জুতা।

জুতাটি পাওয়া গেছে মূলত কেমব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের সেন্ট জোনস কলেজের একটি ভবনের দেয়াল থেকে। কলেজ প্রধানের বাসস্থান হিসেবে ওই ভবনটি ব্যবহৃত হয়। সম্প্রতি ভবনের কমনরুমের দেয়ালে বৈদ্যুতিক তার স্থাপনের জন্য বিভিন্ন প্যানেল অপরসারণ করতে গিয়ে ওই জুতা আবিষ্কার করে রক্ষণাবেক্ষণ কর্মীরা।

এতেই চিন্তায় পড়ে যাবার দরকার নেই! ইংল্যান্ডের পুরাতন কোনো ভবনের দেয়ালে জুতা পাওয়ার ঘটনা এটাই প্রথম নয়। এর আগেও সেখানকার বিভিন্ন বাড়ির দেয়ালে জুতা পাওয়া গেছে। এর কারণটি হলো কুসংস্কার।

১৬ থেকে ১৯ শতকের মধ্যভাগ পযন্ত ইংল্যান্ডজুড়ে এই জাদুর প্রচলন ছিল। সেখানকার মানুষেরা বিশ্বাস করত যে বাড়ির দেয়ালে জুতা এভাবে রেখে দিলে তা ওই বাড়ির বাসিন্দাদের রক্ষা করবে এবং কোনো অশুভ আত্মা সেখানে প্রবেশ করতে পারবে না।
এই চর্চাকেই বলা হয় অ্যাপোট্রোপিয়াক ম্যাজিক। কেবল জুতা নয়, এই উদ্দেশ্যে মৃত বিড়ালের শরীর, ঘোড়ার খুলি, চুল ও মুত্রসহ বোতল ইত্যাদি জিনিসও দেয়াল, ছাদ কিংবা মেঝেতে লুকিয়ে রাখা হতো।

মানবকণ্ঠ/আরএস 





অ্যাপস ও ফিড
সামাজিক নেটওয়ার্ক
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আনিস আলমগীর
প্রকাশক : জাকারিয়া চৌধুরী
রোড -১৩৮, প্লট - ১/এ, গুলশান-১, ঢাকা-১২১২
ফোনঃ +৮৮-০২-৫৫০৪৪৯৪৩-৫, ফ্যাক্সঃ +৮৮-০২-৫৫০৪৪৯৪৮
ই-মেইল : info@manobkantha.com, mkonlinedesk@gmail.com
© সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । মানবকণ্ঠে প্রকাশিত সংবাদ, আলোকচিত্র, ভিডিওচিত্র ও অডিও বিনা অনুমতিতে ব্যবহার করা বেআইনি।
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : আনিস আলমগীর, প্রকাশক : জাকারিয়া চৌধুরী
রোড -১৩৮, প্লট - ১/এ, গুলশান-১, ঢাকা-১২১২ ফোনঃ +৮৮-০২-৫৫০৪৪৯৪৩-৫, ফ্যাক্সঃ +৮৮-০২-৫৫০৪৪৯৪৮
ই-মেইল : info@manobkantha.com, mkonlinedesk@gmail.com