লক্ষ্মীপুরে দুই মামলায় ৫ জনের যাবজ্জীবন

লক্ষ্মীপুরে পৃথক দুই মামলায় পাঁচজনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। একই সঙ্গে প্রত্যেককে ৫০ হাজার টাকা করে জরিমানা করা হয়েছে। সোমবার দুপুরে লক্ষ্মীপুর জেলা ও দায়রা জজ এ কে এম আবুল কাশেম এ রায় দেন।
মামলা ও আদালত সূত্রে জানা যায়, ২০১৩ সালের ১৪ এপ্রিল সকালে সদর উপজেলার বাংগাখাঁ ইউনিয়নে প্রতিবন্ধী এক কিশোরীকে ধর্ষণ করা হয়। এ ঘটনার দিনদুপুরে ওই কিশোরীর বাবা শংকর চন্দ্র দাস বাদী হয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে টুটুল চন্দ্র দাসকে আসামি করে সদর থানায় একটি মামলা করেন। এ মামলায় টুটুল চন্দ্র দাসকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে।
আদালত সূত্রে জানা যায়, ২০১৫ সালের ৮ সেপ্টেম্বর রায়পুর উপজেলার দেনায়েতপুর গ্রামে শ্বশুর বাড়ির বাগানে মো. রাব্বিকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়। এ ঘটনার পরদিন নিহতের বাবা নুরুল আমিন পাটওয়ারি বাদী হয়ে রাব্বির স্ত্রী, শ্বশুর, শাশুড়ীসহ ৪ জনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়ের করেন। গত ২৫ নভেম্বর পুলিশ ওই মামলার চার্জশীট আদালতে দাখিল করেন।  আদালত দীর্ঘ শুনানি শেষে আজ রাব্বির শ্বশুর জয়নাল আবদীন, শাশুড়ি রেজিয়া বেগম, স্ত্রী জোসনা আক্তার ও জোসনা আক্তারের ফুপাতো ভাই মো. আলমকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেন।

মানবকণ্ঠ/এমএকেএ/এফএইচ

Leave a Reply

Your email address will not be published.