পীর হত্যা : প্রধান আসামি কুড়িগ্রামে গ্রেফতার

দিনাজপুরের বোচাগঞ্জে পীর ফরহাদ হাসান চৌধুরী ও তার পালিত মেয়ে রূপালী হত্যাকাণ্ডে জড়িত প্রধান আসামি শফিকুল ইসলামকে কুড়িগ্রাম থেকে গ্রেফতার করেছে রংপুর র‌্যাব-১৩। সোমবার ভোরে তাকে কুড়িগ্রাম জেলার ভুরুঙ্গামারী উপজেলার জয়মনিরহাট বাজার এলাকা থেকে গ্রেফতার করা হয়। সে দিনাজপুর জেলার বোচাগঞ্জ থানার দৌলা এলাকার আজিমুদ্দিনের ছেলে।
সোমবার সকালে রংপুর র‌্যাব কার্যালয়ে রংপুর র‌্যাব-১৩ এর অধিনায়ক এটিএম আতিকুল্ল্যাহ এক প্রেস ব্রিফিংয়ে জানান, দিনাজপুরে চাঞ্চল্যকর পীর ফরহাদ ও গৃহ পরিচারিকা রুপালি বেগম হত্যাকাণ্ডের রহস্য উদঘাটনের জন্য পুলিশের পাশাপাশি র‌্যাবও ছায়া তদন্ত শুরু করে। ওই হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত সন্দেহে পুলিশ নিহত পীরের খাদেম সাইদুর রহমান ও গত ১৫ মার্চ নিহত পীরের প্রতিপক্ষ পীর কুড়িগ্রামের ইসাহাক আলীকে গ্রেফতার করে। তাদের দেয়া জবানবন্দির ভিত্তিতে শফিকুলকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতার হওয়া কুড়িগ্রামের পাথরবাটি গ্রামের পীর এছাহাক আলী স্বীকার করেছেন, প্রলোভন দেখিয়ে শফিকুলকে দিয়ে ফরহাদ ও রূপালীকে হত্যা করান তিনি।
উল্লেখ্য, গত ১৩ মার্চ সোমবার রাতে দিনাজপুরের বোচাগঞ্জ উপজলোর দৌলা এলাকায় পীর ফরহাদ ও তার পালিত মেয়ে গৃহপরিচালিকা রূপালী বেগমকে গুলি ও জবাই করে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা।

মানবকণ্ঠ/এমএম/এসএস